ক্যান্সার আক্রান্ত মায়ের কথা ভেবে শাহাদাতকে ক্ষমা করছে বিসিবি

বাংলাদেশ জাতীয় দলের ক্রিকেটার শাহাদাত হোসেন ২০১৯ সালে সতীর্থ একজন খেলোয়াড়কে মাঠে মারধর করে পাঁচ বছরের জন্য নিষিদ্ধ হন। একই সাথে তাকে তিন লাখ

টাকা জরিমানা করা হয়। পাঁচ বছরের মধৈ দুই বছরের নিষেধাজ্ঞা অতিবাহিত করেছেন এই পেসার। কিন্তু এরই মধ্যে খেলাধুলা না থাকাতে অর্থসঙ্কটে পড়েছেন তিনি।

ক্যান্সারে আক্রান্ত মায়ের চিকিৎসার জন্য বিসিবির কাছে শাস্তি কমানোর আবেদন করেন শাহাদাত। তার আবেদনের প্রেক্ষিতে মায়ের চিকিৎসার কথা ভেবে শাস্তি মওকুফ করার কথা ভাবছে বিসিবি৷ হয়ত খুব শীগ্রই শাস্তি মওকুফের সুসংবাদ পাবেন শাহাদাত। এমনটাই এক গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স চেয়ারম্যান আকরাম খান। এ ব্যাপারে আকরাম বলেন, ‘এটা নিয়ে আলাপ-আলোচনা চলছে। ডিসিপ্লিনারী কমিটির চেয়ারম্যান যিনি আছেন তাকে এই প্রস্তাবটা দেব যেন ওকে ক্ষমা করে দেয়া

হয়। মনে হচ্ছে এটা হয়ে যাবে। যেহেতু ওর মা অসুস্থ এবং চিকিৎসার খরচ চালাতে হিমশিম খাচ্ছে। আশা করছি শাস্তি উঠে গেলেই ক্রিকেটে ফিরতে পারবে শাহাদাত।’ এদিকে শাহাদাত বলেন, ‘বিসিবি আমাকে অনেক সাহায্য করছে। আমি সিইও স্যার, আকরাম ভাইদের সঙ্গে কথা বলেছি। অনেক কথা হয়েছে। হয়তো তারা আমাকে শেষ একটা সুযোগ দিচ্ছে। আমি এতোটুকু নিশ্চিত করতে পারি যে ভবিষ্যতে এমন কিছু আর হবে না’ তিনি আরও বলেন, ‘বিশেষ করে ক্রিকেট বোর্ড, বোর্ড প্রেসিডেন্ট, কোয়াবের প্রেসিডেন্ট, মল্লিক ভাই সবাইকে ধন্যবাদ দিতে চাই। ওনারা সবাই আমাকে অনেক হেল্প করছেন। আমাকে সুযোগ করে দিলে হয়তো জাতীয় লিগ খেলেই মায়ের চিকিৎসা করাতে পারব।’

Author: admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *