‘লকডাউন’ আরো বাড়ানোর সুপারিশ

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে চলমান বিধিনিষেধ আরও সাত দিন বাড়িয়ে ৩১ মে পর্যন্ত বহাল রাখার সুপারিশ করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

এ সংক্রান্ত একটি প্রস্তাব অনুমোদনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছে বলে জানা গেছে। সম্পর্কিত খবর প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন

পেলে ২৩ মে (রবিবার) এ সংক্রান্ত আদেশ সংবলিত প্রজ্ঞাপন জারি করা হতে পারে। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে। এদিকে গত ১৮ মে অনুষ্ঠিত কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির ভার্চুয়াল সভায় বিধিনিষেধের মেয়াদ নতুন করে বাড়ানোর কোনও সুপারিশ করেনি। তারা এক্ষেত্রে মাস্ক পরা তথা স্বাস্থ্যবিধি মানানোর ওপর জোর দিচ্ছে বলে জানা গেছে। জানা গেছে, টানা এক মাসেরও বেশি

সময় বিধিনিষেধ বহাল রাখার পর সরকারও জনগণের জীবন-জীবিকার বিষয়টি বিবেচনা করে আর বিধিনিষেধের মেয়াদ বাড়াতে চায় না। তবে, ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে উদ্বিগ্ন সরকার। ইতোমধ্যে যশোর সাতক্ষীরাসহ সীমান্ত জেলাগুলোয় এই ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমণের আশঙ্কা রয়েছে। এ কারণেই সরকারের নীতিনির্ধারকরা বেশি উদ্বিগ্ন। এমন পরিস্থিতিতে সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে সুবিধাজনক অবস্থানে থাকতে বিধিনিষেধের মেয়াদ আরও এক সপ্তাহ বাড়ানোর প্রস্তাব রেখে তা অনুমোদনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর দফতরে পাঠানো হয়েছে। উল্লেখ্য, কোভিড-১৯ সংক্রমণ রোধে গত ১৪

এপ্রিল ভোর ৬টা থেকে আট দিনের কঠোর বিধিনিষেধ শুরু হয়। পরে চার দফা এই বিধিনিষেধের মেয়াদ বাড়ানো হয়; যা শেষ হবে আগামী রবিবার (২৩ মে) মধ্যরাতে। বিধিনিষেধে আন্তজেলা বাস সার্ভিস, লঞ্চ ও রেল যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে।

Author: admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *