তিনজনই প্রেমিক-প্রেমিকা, আবেগের বশে কিশোর-কিশোরীরা এ ধরনের কর্মকাণ্ড করেছেন

নিজেদের ‘গুছিয়ে নেওয়ার’ লক্ষ্যে প্রায় দুই সপ্তাহ ধরে পরিকল্পনার পর ‘বিয়ে করে’ ঢাকার ধামরাই থেকে চট্টগ্রামে পালিয়েছেন ছয় কিশোর কিশোরী। চট্টগ্রামে গিয়ে তারা

পুলিশের কাছে ধরা খেলে তাদের বিয়েসংক্রান্ত পরিকল্পনা ভেস্তে যায়। পুলিশের কাছে আটককৃত ছয় কিশোর কিশোরী দাবি করে, এক বান্ধবীকে বাল্যবিয়ে থেকে বাঁচাতে

নিজেরাই পালিয়েছে পছন্দের ছেলেদের সঙ্গে। আটককৃত তিন কিশোরীর দুজন ষষ্ঠ, একজন পঞ্চম শ্রেণির; আর তিন কিশোরের দুজন নবম, একজন অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী। শুক্রবার (১২ মার্চ) সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম রেলস্টেশন এলাকা থেকে কোতোয়ালি থানা পুলিশ তাদের হেফাজতে নেয়। নগর পুলিশের কোতোয়ালি জোনের সহকারী কমিশনার (এসি) নোবেল চাকমা জানান, যে মেয়ের বিয়ে তার বয়স ১২ বছর। ক্লাস ফাইভের ছাত্রী। ছেলের বয়স ১৫-১৬ বছর। পড়ালেখা করে না। তাদের সঙ্গে আসা দুই ছেলে ও দুই

মেয়ে। তাদের মধ্যে তিনজনের বয়সই ১২ থেকে ১৫ বছরের মধ্যে। এক ছেলের বয়স একটু বেশি, ১৭-১৮ বছর। বাড়ি ঢাকা জেলার ধামরাই উপজেলায়।’ পুলিশের কাছ থেকে আরও জানা যায়, ‘তিনজনই প্রেমিক-প্রেমিকা। তারা বাড়ি থেকে পালিয়ে (শুক্রবার) দুপুরে চট্টগ্রামে আসে। যে দুজনের বিয়ে তাদের জন্য পোশাকও কেনা হয়। খবর পেয়ে আমরা রেলস্টেশন এলাকায় গিয়ে তাদের ধরে থানায় নিয়ে যাই। তাদের অভিভাবকদের খবর দেওয়া হয়েছে। উনারা থানায় আসছেন। তাদের হাতে তুলে দেওয়া হবে।’ পুলিশ আরও জানায়, বাড়ি থেকে বের হওয়ার সময় তাদের কাছে ছিল মাত্র ছয় হাজার টাকা। ঢাকা থেকে চট্টগ্রামে আসতেই তাদের বেশকিছু টাকা খরচ হয়ে যায়। রাতে অটোরিকশা নিয়ে বিভিন্ন স্থানে ঘুরেও পরিচিত ব্যক্তির সন্ধান না পেয়ে অটো চালকের কাছ থেকে রাতযাপনের ব্যবস্থা করে দেওয়ার সহায়তা চায়। ওই অটোচালক তার নিজের অটো ভাড়া বাবদ সাড়ে ৬০০ টাকা নিয়ে ফ্রি-পোর্ট এলাকায় একটি স্থানে নিয়ে যায়। সেখানে এক নারীর মাধ্যমে রাতে তাদের থাকার ব্যবস্থা করা হয় একটি বাসায়, যার জন্য ওই নারীকে তাদের দিতে হয়েছে ৭০০ টাকা ঘর ভাড়া। আবেগের বশে কিশোর-কিশোরীরা এ ধরনের কর্মকাণ্ড করেছেন মন্তব্য করে এসি নোবেল চাকমা বলেন, ‘তাদের বয়স কম। চট্টগ্রামে তাদের কোনো আত্মীয়স্বজন, চেনা-পরিচিত লোকজনও নেই। যে কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনাও ঘটতে পারত। এই বয়সে বিয়েও আইনসিদ্ধ নয়। সে জন্য আমরা তাদের থানায় নিয়ে গেছি।’

Author: admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *